ইউনাইটেড ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি, ঢাকা

“আলহামদুলিল্লাহ। আল্লাহর রহমতে আমাদের UIU তে অনুষ্ঠিত হলো লস্টমডেস্টি টিমের সহযোগীতায় পর্নোগ্রাফি বিরুদ্ধে সচতনেতা মুলক সেমিনার । ইনশাআল্লাহ পরবর্তিতে আরো বড় আকারে করার ইচ্ছা আছে।” – Lost Modesty Volunteer Team UIU

সাতকানিয়া, চট্টগ্রাম

চট্টগ্রাম জেলার সাতকানিয়া থানার কেওচিয়া ইউনয়নের মাদারবাড়ি গ্রামে গত ১৬ আগস্ট ভাইয়েরা এ প্রোগ্রামের আয়োজন করেন। দুপুর দুইটা থেকে প্রায় তিন ঘন্টা তাঁরা অনেক তরুণ দের সাথে কথা বলেছেন এবং লিফলেট বিলি করেছেন।ক্যাম্পেইনের  সবচেয়ে বড় প্রাপ্তি হচ্ছে, অনেকের গার্ডিয়ান ভাইদের সাথে স্বেচ্ছায় যুক্ত হয়ে ওনাদের ছেলের সাথে খোলাখুলি কথা বলেছেন|

নকলা, শেরপুর

নীরবে এগিয়ে যাচ্ছেন নকলা, শেরপুরের ভলান্টিয়ার ভাইয়েরা। ইতিমধ্যে ৫ টারও বেশি ক্যাম্পেইন করে ফেলেছেন। লিফলেট বিতরণ করেছেন এলাকার মার্কেটগুলোতে, শেরপুর সরকারি কলেজ ও হাজী জালমাহমুদ কলেজের ভাইদের মাঝে। আল্লাহ্‌ উনাদের মেহনত কবুল করে নিক।

সিলেট

“১৮ জুলাই আমরা একটি সফল ক্যাম্পেইন করেছি সিলেটের অন্তর্গত রাখালগঞ্জ কে.সি উচ্চ বিদ্যালয়ে। আমরা সেখানে ক্যাম্পেইন করি ঐ হাইস্কুলেরই সহকারী ইংলিশ শিক্ষকের আমন্ত্রণে। ধর্ষণ, নারী নির্যাতন, সামাজিক অধঃপতন, মূল্যবোধ লোপের মূল কারণসমূহ, এই নীল থাবার সামাজিক, পারিবারিক, শারীরিক, মানষিক কুফল, কিভাবে মুক্ত হওয়া সম্ভব, চিকিৎসাশাস্ত্র, রিলিজিয়াস, সোশ্যাল পয়েন্ট অফ ভিউ- এ সবকিছু নিয়েই আলোচনা হয়েছে। এরপর আমরা উন্মুক্ত প্রশ্নোত্তর পর্ব রাখি। যেখানে শিক্ষার্থীরা তাদের অভিমত, প্রশ্নসমূহ বন্ধুসুলভ, খোলাখুলিভাবে আমাদের সাথে ডিস্কাস করে। এটাকে “মোমেন্ট অব দ্যা ডে” বললে অতুক্তি হবে না মোটেই।  শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানটির শিক্ষকেরাও তাদের বক্তব্য পেশ করেন। পরিশেষে উক্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের প্রধান শিক্ষক গৌরা পদ দত্ত স্যার এর গুরুত্বপূর্ণ আলোচনার মাধ্যমে বক্তব্য পর্বের ইতি টানা হয়।”

কোম্পানীগঞ্জ

নষ্ট নীল অন্ধকার জগতে আলোর দিশা দিতে নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে চলছে মসজিদ ভিত্তিক “মুক্ত বাতাসের খোঁজে” লিফলেট বিলি।

মাগুরা

মুক্ত বাতাসের খোঁজে :-মাগুরা জেলা ভাইদের মাধ্যমে মাগুরা হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দী কলেজ থেকে ৩য় বারের মত শোনা গেল পর্নোগ্রাফি বিরোধী আওয়াজ। আলহামদুলিল্লাহ। গত ১ জুলাই মাগুরা সরকারি কলেজে একাদশ শ্রেণির নতুন ভর্তিপ্রাপ্ত ছাত্রদের মাঝে পর্নোগ্রাফি বিরোধী লিফলেট বিতরণ করা হয়েছে। নতুন ছাত্রদের কলেজের প্রথম দিনকেই ভাইয়েরা বেছে নিয়েছিলেন ইচ্ছে করেই, যাতে শুরুতেই তারা চিনে নিতে পারে লুকিয়ে থাকা ফাঁদগুলো।

সিলেট

আলহামদুলিল্লাহ! Lost Modesty Supporting Team from Sylhet ভাইদের ৫ম ক্যাম্পেইন সম্পন্ন হল সিলেট ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজে। যারা সিলেটে কাজ করতে আগ্রহী তারা ভাইদের পেজে যোগাযোগ করুন।

মিরপুর

আলহামদুলিল্লাহ। মিরপুরে শুরু হল Lost Modesty Supporting Team Mirpur Dhaka ভাইদের ক্যাম্পেইন। খুব অল্প সময়ে চমৎকার কিছু কাজ হয়েছে। পিরেরবাগ, মিরপুর-১০ শাহআলী প্লাজা ও একটা কোচিং সেন্টারে ভাইয়েরা আমাদের লিফলেট বিতরন করেছেন। সামনে বড় পরিসরে আরও কাজ করবেন উনারা, ইনশাআল্লাহ।

গাজীপুর

আলহামদুলিল্লাহ। ডুয়েট নিকটস্থ texttree coaching center এ আমাদের প্রথম ক্যাম্পেইন শেষ হলো। এখানে ইনশাআল্লাহ আরো কয়েকটি ক্যাম্পেইন হবে। ডুয়েটের ভাইয়েরা যোগাযোগ করবেন প্লিজ। আমাদের পরবর্তী ভেন্যু সমূহ: ১/ বশেমুরকৃবি, ২/ ভাওয়াল বদরে আলম, ৩/ জয়দেবপুর জংশন, ৪/ চৌরাস্তা, ৫/ মাউনা, ৬/ কাপাসিয়া, ৭/ IUT, ৮/ বোর্ড বাজার, ৯/ টংগী, ১০/ হারিনাল। ইনশাআল্লাহ গাজীপুরের আরো বিভিন্ন স্থানে আমরা কাজ করবো। আপনাদের দোয়া এবং সহযোগিতা কামনা করছি।

সুনামগঞ্জ

Lost Modesty Supporting Team Sunamganj Govt Collage ভাইয়েরা জানাচ্ছেন, “আমরা সুনামগঞ্জ সরকারি কলেজের কিছু তরুণ নিজ উদ্যোগে পর্নোগ্রাফি ও অশ্লীলতার বিরুদ্ধে সচেতনতামূলক লিফলেট এবং ছোটখাটো সেমিনার আয়োজন করার পরিকল্পনা গ্রহণ করেছি। আজকে প্রথম কিছু লিফলেট বিতরণ করলাম সুনামগঞ্জ পৌর কলেজে মাধ্যমিকে ভর্তি হতে আসা কিছু ভাইদের মধ্যে। আশা রাখি আল্লাহর রহমতে আগামীতে এই কার্যক্রম আরো বড় পরিসরে হবে ইনশাআল্লাহ।”

ময়মনসিংহ

“আধঘন্টার বৃষ্টি। হ্যা, মাত্র আধঘন্টার বৃষ্টিতেই পুরো শহর ভাসছে! তবে ভাসাভাসির এই বৃষ্টির আগেই আমরা পৌঁছে গিয়েছিলাম মুসলিম ইনস্টিটিউটের পাবলিক লাইব্রেরীতে। সেরে ফেলেছি ছোট্ট একটি কাজ। দুই কপি ‘মুক্ত বাতাসের খোঁজে’ বই সৌজন্য কপি হিসেবে তুলে দিয়েছি লাইব্রেরীয়ান আঙ্কেলের হাতে। তিনি বেশ খুশি হয়েছেন। আলহামদুলিল্লাহ। শহরের ভাইবোনেরা এখন খুব সহজেই ফ্রী-তে বইটি পড়ার সুযোগ পাবেন। শিল্পাচার্য জয়নুল আবেদীন পার্কের লাইব্রেরী এবং সরকারি পাবলিক লাইব্রেরীতেও বইটি দেওয়ার ইচ্ছে আছে আমাদের। আল্লাহ তাওফিকদাতা। আমাদের সাথে কাজ করতে আগ্রহী কিংবা ডোনেট করতে চান এরকম কেউ থাকলে ইনবক্সে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।”

গাজীপুর

Lost Modesty Team Support Gazipur এর ভাইদের প্রথম ক্যাম্পেইন হয়ে গেল আলহামদুলিল্লাহ। ভাইয়েরা তাদের অভিজ্ঞতা শেয়ার করেছেন- “আমরা গাজীপুর সদর এ কাজ করেছি। আমাদের ফাউন্ডেশন এর ১০ জন মেম্বার মিলে কিছু টাকা কালেকশন করে লিফলেট ছাপিয়ে নেই। গত ১৪ জুন প্রায় ১৫০ লিফলেট বিতরণ করা হয়েছে। যারা লিফলেট পেয়েছে সবাই এ কাজকে সাধুবাদ জানিয়েছে। কয়েকজন আসক্ত ভাইয়ের সাথে কথা হল, তারা ২০ জনের গ্রুপ, ক্লাস সিক্স থেকে আসক্ত। এ থেকে বাঁচার জন্য হিম্মত করেছে। আর, সমাজে সমকামীতা আস্তে আস্তে বৃদ্ধি পাচ্ছে, কয়েক জনের নাম পর্যন্ত জানিয়েছে। এ বিষয়ে আরও কাজ করা উচিত।”

মতিঝিল

রামাদানে ১৫০+ নটরডেমিয়ানদের নিয়ে আয়োজন করা হয় ‘পর্নোগ্রাফিঃ মানবতার জন্য হুমকি’ শিরোনামে এক সেমিনার। আরামবাগের আশেপাশে লিফলেটও বিতরণ করা হয় সমান তালে। গত ১ মাসের প্রায় প্রতি বৃহস্পতিবারেই আমাদের টিম মিটিং অনুষ্ঠিত হয়েছে, আলহামদুলিল্লাহ। গতকাল প্রথমবর্ষের নবীন ছাত্রদের মাঝে হোস্টেল ঘুরে ঘুরে লিফলেট বিতড়ন করা হয়েছে। পাশাপাশি যেসব হোস্টেলে পাঠাগার আছে সেখানে মুক্ত বাতাসের খোঁজে বই উপহারও দেয়া হয়।

মাগুরা

আলহামদুলিল্লাহ। মুক্ত বাতাসের খোঁজে-মাগুরা জেলা ভাইয়েরা হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দী কলেজে ক্যাম্পেইন করেছেন ২য় বারের মত। এছাড়াও সড়কে নেমে বিলি করেছেন ১০০ লিফলেট। সবমিলিয়ে তারা বিতরণ করেছেন প্রায় ১৩০০+ লিফলেট। যারা মাগুরাতে কাজ করতে আগ্রহী তারা ভাইদের পেজে যোগাযোগ করুন। ভাইয়েরা আপনার সঙ্গে যোগাযোগ করবে ইনশাআল্লাহ।

সৈয়দপুর

গত ২১ জুন, ২০১৯, শুক্রবার সন্ধ্যায় নীলফামারী জেলার সৈয়দপুর থানার শেরে বাংলা রোডে সৈয়দপুর প্লাজা মার্কেটে লস্ট মডেস্টি সাপোর্টিং টিম-সৈয়দপুর পেজের ভাইয়েরা পর্ণোগ্রাফি বিরোধী লিফলেট বিতরণ করেছেন আলহামদুলিল্লাহ। আল্লাহ্‌ আপনাদের এ কাজ কবুল করে নিক। সৈয়দপুরের ভাইয়েরা যারা সুযোগ খুঁজছিলেন কাজ করার, অশ্লীলতামুক্ত সমাজ গড়ার স্বপ্নে, আল্লাহ্‌কে সন্তুষ্টির আশায় তারা যোগ দিন ইনাদের সাথে। যেসব এলাকায় এখনো কাজ শুরু হয়নি, ভাইয়েরা একটু উদ্যোগ নিন নিজেরা মিলে। চুপ করে বসে থাকবেন না। আপনার আশেপাশেই বিকৃত মানসিকতা নিয়ে ছেলে-মেয়েরা বেড়ে উঠছে, কেউ ধর্ষিত হচ্ছে, কারো সংসার ভাঙছে, কেউবা শারীরিক-মানসিক অসুস্থতায় ভুগছে। যারা এগুলো দেখেও না দেখার ভান করে পাশ কাটিয়ে যাচ্ছেন তারা কিভাবে নিশ্চিত হচ্ছেন এ অন্ধকার জগত একদিন আপনার ঘরে হানা দিবে না?

সিলেট

Lost Modesty Supporting Team from Sylhet এর চতুর্থ ক্যাম্পেইন সিলেট কাজীটুলা উঁচাসড়ক মসজিদে সম্পন্ন হয়েছে আলহামদুলিল্লাহ। একরাশ ভালোবাসা ভাইদের প্রতি। যাদের অংশগ্রহণ ও উচ্ছল হাসিমুখ আমাদের প্রেরণা। অশ্লীলতার ছোবল থেকে প্রজন্মকে বাঁচানোর এ উদ্যোগে উদ্যোগী হওয়ার জন্য স্থানীয় ভাইদের ধন্যবাদ।

যশোর

আলহামদুলিল্লাহ। খুব অল্প সময়ে Lost Modesty Support Team Jashore ভাইয়েরা ৩ টা ক্যাম্পেইন করে ফেলেছেন! সবচেয়ে বেশি ভালো লাগলো খোলা ময়দানে উনাদের প্রজেক্টর শো। আল্লাহ্‌ ভাইদের মেহনতকে কবুল করে নিক। আপনারা যারা যশোরে আছেন, এগিয়ে আসুন, উনাদের সাথে যোগ দিন, সহায়তা করুন। বিষাক্ত বাতাস থেকে এই প্রজন্ম ও পরবর্তী প্রজন্মকে রক্ষা করতে…আল্লাহ্‌ বলেন, ‘তোমরা সর্বোত্তম উম্মাহ। তোমাদের উত্থান ঘটানো হয়েছে মানবজাতির পথ প্রদর্শন ও সংশোধনের উদ্দেশ্যে। তোমরা মানুষকে সত্য ও ন্যায়ের আদেশ দেবে, আর অন্যায়-অপরাধ থেকে বিরত রাখবে এবং আল্লাহর প্রতি থাকবে অবিচল ও আস্থাশীল।’ (সূরা আলে-ইমরান : ১১০)

চট্টগ্রাম

চট্টগ্রামের দেওয়ানহাট ফায়ার সার্ভিস মসজিদে ইতিকাফরত মুসলমানদের সাথে পর্নোগ্রাফি বিরোধী আলোচনা হয়েছে। আলহামদুলিল্লাহ, সকলের কাছ থেকে আশানুরূপ সাড়া পাওয়া গিয়েছে।

শেরপুর

রমাদানের শেষ দশকে মসজিদে কিছু ভাইদের সাথে পর্নোগ্রাফি, হস্তমৈথুন এবং মাদকের ভয়াবহতা নিয়ে আলোচনা করেছিলাম। আল্লাহর এক বান্দা তার পরদিন মসজিদে এসে আমার পাশে বসে নিজের ব্যাপারে কিছু কথা বলতে চাচ্ছিলো। কিন্তু সাহস করে বলতে পারছিলো না। লজ্জা পাচ্ছিলো। আমি অবস্থা অনুমান করে তার সাথে সহজ হলাম যেন তাঁর সমস্যাটা আমাকে বলতে পারে। সে বলতে শুরু করে- “হুজুর জীবনে তো অনেক বড় ভুল করেছি…”। আসলে সে হস্তমৈথুনে আসক্ত ছিলো। হস্তমৈথুনের ভয়াবহতা জানতে পেরে আফসোস করছেন। না জানি কতো কতো ভাইয়েরা এমন অন্ধকারে হারিয়ে যাচ্ছে। কিন্তু এই ভাইদেরকে অন্ধকার থেকে আলোর পথ দেখানোর জন্য, বিষাক্ত বাতাস থেকে মুক্ত বাতাসে ফিরে আনার জন্য কাজ করবে এমন ভাইদের খুঁজে পাচ্ছি না।

ফেনী

Lost Modesty Supporting Team-Feni এর ভাইদের অশ্লীলতা বিরোধী ক্যাম্পেইন। বন্ধুরা মিলে ঘুরতে যাচ্ছিলেন সবাই। এর মাঝেই হয়ে গিয়েছে ক্যাম্পেইন। আলহামদুলিল্লাহ একটু ইচ্ছে , একটু আন্তরিকতা থাকলে আল্লাহ্‌ দ্বীনের জন্য কাজ করা সহজ করে দেন। আমাদের এই ছোটো ছোটো সুযোগগুলো নেওয়া উচিত, বন্ধুদের সঙ্গে আড্ডায়, খেলার মাঠে, প্রাইভেট, কোচিং এ যথাসম্ভব চেষ্টা করা উচিত দাওয়াত দেওয়ার। নিজে ভালো থাকতে চাইলেও অনেক সময়ই বন্ধুদের পাল্লায় পড়ে নীল অন্ধকারে ফিরে যাওয়া লাগে বারবার। তাই বন্ধুবান্ধবের দাওয়াতের ব্যাপারটিতে খুব গুরুত্ব দেওয়া উচিত।

চাঁদপুর

মনে পড়ে? তোমার সেই সোনালি শৈশবের কথা? তুমি যেদিন প্রথম হেসেছিলে,,সেদিন হয়তো আকাশে রঙধনু ছিল না। তবু কি অপরূপ রঙে রেঙেছিল ধরণীর আকাশ। সেই স্বপ্নগুলো মনে আছে? কী পবিত্র ছিল তোমার স্বপ্নগুলো, তাই না? তোমার ইচ্ছেগুলো…বৃষ্টিতে ভিজে ভিজে ফুটবল খেলা… অদ্ভুত অদ্ভুত নিয়ম বানিয়ে মিনি ক্রিকেট খেলা,,সবুজ ঘাসে শুয়ে ঐ দূর আকাশে তাকিয়ে থাকা,,আরো কত কি…হঠাৎ নীল এক ঝড় এসে তোমার পবিত্র স্বপ্নগুলোকে অপবিত্র করে দিল…তোমার সুন্দর ভাবনার দু’য়ারগুলো বন্ধ করে দিল,,তোমার ইচ্ছে গুলোকে পরিবর্তন করে দিল। ভাই, তুমি তোমার ক্ষতিগুলো বুঝতেছ তো? তাহলে কেনো নীল অন্ধকারে হেঁটে বেড়াচ্ছো আজও ? ফিরে আসো ভাই আলোর দিকে… ফিরে আসো জান্নাতের দিকে..তোমার রবের দিকে। সবাই যে তোমারই অপেক্ষায়…..

বগুড়া

আমাদের লস্ট মডেস্টি সাপোর্টিং টিম বগুড়া এর লিফলেট বিতরন কার্যক্রম শুরু হয়েছে। আজ বগুড়া কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্র (টিটিসি) তে ড্রাইভিং প্রশিক্ষণরত কিছু ভাইদের মাঝে লিফলেট বিতরন করা হয়েছে। সকলে পজিটিভ ভাবে নিয়েছে এবং সবাই গুরুত্ব সহকারে পড়েছে।

নরসিংদী

আলহামদুলিল্লাহ, গত ১৪ই মে, ২০১৯ বেলা ২টায়, নরসিংদী জেলার রায়পুরা থানার অন্তর্গত নবিয়াবাদ গ্রামের ‘আল-হেরা আইডিয়েল একাডেমী’ স্কুলের একটি কক্ষে পর্নোগ্রাফির বিরুদ্ধে সচেতনতামূলক সেমিনার আয়োজন করা হয়। সেমিনারে বক্তব্য রেখেছেন জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত একজন ইসলামী ব্যক্তিত্ব, অনলাইন গবেষক এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন মেধাবী ছাত্র। স্থানীয়দের মধ্যেও কয়েকজন বক্তব্য রেখেছেন। কিশোর-তরুণ এবং ছাত্রদের মাঝে লিফলেট বিতরণের পাশাপাশি, নবিয়াবাদের তরুণদের পক্ষ থেকে আর্থিক সহায়তায় হালকা ইফতারের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এর আগে নবিয়াবাদসহ আশেপাশের গ্রামগুলোতে প্রচারণা কার্যক্রম চালিয়েছিলেন আয়োজকবৃন্দ।

ময়মনসিংহ

❝আকাশ সংস্কৃতির নেতিবাচক দিকটা নিয়ন্ত্রণ করে একে পজিটিভলি ব্যবহার করতে হবে। ইসলাম পুনঃপ্রতিষ্ঠার জন্য একে ব্যবহার করতে হবে..❞ বলছিলেন স্থানীয় একজন মুরব্বি। আলহামদুলিল্লাহ, আমরা আমাদের প্রথম সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে ত্রিশালের আহাম্মদাবাদের অনির্বাণ কোচিং সেন্টারে। উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় মাসজিদের সম্মানিত ইমাম সাহেবসহ স্কুল-কলেজ-মাদরাসা পড়ুয়া প্রায় ৪০ জন ছাত্র। বরাবরের মতোই লিফলেট বিলির পাশাপাশি আমরা বইও বিতরণ করেছি। মাসজিদের ইমাম সাহেব, স্থানীয় একজন মুরব্বি এবং কুইজের মাধ্যমে একজন ছাত্রকেও বই দেওয়া হয়েছে।

সীতাকুণ্ড

পবিত্র মাহে রমাদান। যেকোনো ভালো কাজের জন্য অন্য মাসগুলো থেকে অনেক অনেক গুন বেশি সওয়াব। ঠিক এই সময়টাতেই সীতাকুণ্ডের ভাইয়েরা পর্নোগ্রাফির ভয়াবহতা নিয়ে এলাকায় প্রোগ্রাম করে ফেলেছেন। আলহামদুলিল্লাহ। সীতাকুণ্ডের ভাইয়েরা অবশ্যই অবশই Lost modesty supporting team for sitakunda এর ভাইদের সহায়তা করুন। উনাদেরকে সর্বোচ্চ সাপোর্ট দিন। প্রজন্ম রক্ষার্থে এই কাজটি অন্তত করুন। প্লীজ।

রাজশাহী

TazkiyahLife এর ভাইয়েরা জানাচ্ছেন চকতাঁতিহাটি (ছোট পলাশী), গোদাগাড়ি, রাজশাহী থেকেঃ “সত্যি কথা বলব? শহরের চেয়ে গ্রামে পর্ণগ্রাফী, ধর্ষণ, পরকীয়ার সমস্যা বেশি কিন্তু শহরের চেয়ে গ্রামে ক্যাম্পেইন করে আরামটাও বেশি। আলহামদুলিল্লাহ। কারণ কি জানেন? গ্রামে কয়েক ঘণ্টা ধরে মানুষকে বুঝালে তারা মনযোগ দিয়ে শুনে। শহরে কর্পোরেট লাইফে সময় কোথায় এত? এর চেয়েও বড় পয়েন্ট হচ্ছে গ্রামে এখনো ইসলামের প্রতি শ্রদ্ধাবোধ কাজ করে যেটা শহরে নেই। জ্ঞানের পাহাড় ডিঙিয়ে শহুরে লোকগুলো দিন দিন আরো গণ্ডমূর্খই হচ্ছে। নেই আন্তরিকতা, সরলতা। সব জায়গায় শুধু ফরমালিটিস আর ফরমালিটিস। মন খুলে আল্লাহ সুবহানাহু ওয়াতা’আলার দেয়া সমাধানগুলোও বলা যায় না। কত রকমের কড়াকড়ি আর সতর্কতা!!! অথচ আসমান জমিনের রবের শপথ, এইসব সিভিয়ার সমস্যার সমাধান আমরা আল্লাহ আযযা ওয়া জালের দেয়া ওষুধের চেয়ে উত্তম আর কোথায় পাবো?”

সিরাজগঞ্জ

Lost Modesty Supporting Team From Sirajganj. ভাইদের পোস্ট- “আলহামদুলিল্লাহ। প্রথম সেমিনারের পর রোজার কারণে কয়েকদিন বিরতি দিয়ে আজ বিকালে (১২/০৫/২০১৯ ) সিরাজগঞ্জ সরকারি কলেজ মাঠে, শহরের বড়-পুল এলাকাসহ এস.এস রোডে লিফলেট বিতরণ করা হয়েছে। অনেকগুলো বইয়ের চাহিদা থাকা সত্বেও আমাদের সীমাবদ্ধতার কারণে মাত্র দুটি বই বিতরণ করতে পেরেছি। সম্পূর্ণ ফ্রিতে এ পর্যন্ত মোট ১৮ টি বই বিতরণ করা হয়েছে। ইনশাআল্লাহ সামনে আরও বিতরণ করা হবে। যা যা ভালো লেগেছেঃ ১) দু-তিনজন বাদে সবাই বিষয়টি পজিটিভভাবে নিয়েছে ২) অনেকে উৎসাহ দিচ্ছে ৩) কিছু ভাই লিফলেট নিয়ে পড়ার পর আবার ফিরে এসে নিজেরা বিলি করার জন্য কিছু লিফলেট নিয়ে গেছে ৪) অনেক ভাই বই পড়ার জন্য চাচ্ছে, বই যোগাড় করে দিতে বলছে ৫) বেশিরভাগ মানুষকেই লিফলেট নিয়ে ভালভাবে পড়তে দেখা গেছে”

কুমিল্লা

Lost Modesty Supporting Team Cumilla এর ভাইয়েরা জানাচ্ছেন- “আলহামদুলিল্লাহ, আল্লাহর রহমতে প্রোগ্রামটা অনেক সুন্দরভাবে সম্পূর্ণ করতে পেরেছি। সবচেয়ে ভালো লেগেছে ছেলেদের একাগ্রতা এবং আন্তরিকতা। সবাই আগ্রহী বিভিন্ন স্কুল এবং মাদ্রাসায় প্রোগ্রাম করার জন্য। লিফলেট নিয়ে সমস্যা হয়েছে, আমরা TazkiyahLife এ order দিয়েছিলাম অনেক আগে, কিন্তুু Courier Service এর ত্রুটির জন্য অনেক পূর্বে Order দিয়েও এখনো পাইনি তাই লিফলেট ছাড়াই এবার প্রোগ্রাম করতে হয়েছে।

মাগুরা

ছোট্ট একটা ছেলে। টাকা যোগাড় করে ১১০০ লিফলেট ছাপিয়ে ফেলেছে। তারপর সেগুলো স্কুল কলেজ শিক্ষার্থীদের মধ্যে বিতরণও করে ফেলেছে। সাধারণ মানুষদের মধ্যেও করেছে। প্রাথমিক পর্যায়ে কিছু ভাইয়ের সাহায্য পেলেও পরে সব কিছু করেছে একা একা। অনেক ভাইই অনুযোগ করে বলেন, ভাই একা একা কি কাজ করা যায়? এই ছেলের কাছ থেকে ভাইয়েরা অনুপ্রেরণা নিতে পারেন ইনশা আল্লাহ্‌। গতোকাল যখন কথা হচ্ছিল মাগুরার ভাইটার সাথে তখন সে বারবার বলছিল, ভাইয়া পেইজ থেকে অবশ্যই বলে দিয়েন যে আমাদের ভলান্টিয়ার লাগবে। মাগুরার ভাইয়েরা কোথায়? পরিবর্তনের স্বপ্ন দেখা ‘দস্যি’ ছেলেটার পাশে দাঁড়াবেন না ?

ব্রাহ্মণবাড়িয়া

মুক্ত বাতাসের খোঁজে – নবীনগর এর ভাইয়েরা ব্যাপক সাড়া পেয়েছেন তরুণদের থেকে। সবাই বেশ আগ্রহভরে লিফলেট এবং বই পড়ছেন। মসজিদে, বন্ধুদের আড্ডায়, HSC পরীক্ষার্থীদের মাঝে লিফলেট বিতরণ করা হয়েছে অনেক জায়গাতেই। আরো বড় পরিসরে কাজ শুরুর পরিকল্পনা চলছে। আল্লাহ্‌ সহজ করুক। আমীন। 

কুড়িগ্রাম

ভাইয়েরা জানাচ্ছেন, ‘আমাদের কিছু সদস্য দাওয়াত করেছিল তাদের গ্রামে জুম্মার নামাযের জন্য। নামায পড়তে গিয়ে অবাক হয়ে গেলাম। ঐ গ্রামের অনেক ছেলে মিলে মসজিদে মিষ্টি বিতরন করে (রমাদানের আগের ঘটনা) মুরব্বীদের দোয়া নিলো। তারা আজ থেকে শপথ নিলো পাঁচ ওয়াক্ত নামায কায়েম করবে। এটা দেখে আজ অনেক গর্ব করতে ইচ্ছা করতেছে। ভাইয়া আমাদের জন্য দোয়া করবেন।” কুড়িগ্রামের ভাইয়েরা বেশ জোরালো কাজ করতে চাচ্ছেন কিন্তু তাঁদের অল্প কয়েকজনের পক্ষে প্রত্যাশা অনুযায়ী কাজ করা সম্ভব হচ্ছেনা। ভাইদের জরুরী সাহায্য দরকার।

সিলেট

১) সিলেটের ভাইদের তৃতীয় ক্যাম্পেইন বাগবাড়ী জামে মসজিদ এ হয়েছে। পাশাপাশি গত শুক্রবার এই প্রথম মসজিদের মিম্বর থেকে পর্নোগ্রাফির বিরুদ্ধে আওয়াজ উঠেছে। সিলেটের প্রাণকেন্দ্র কোটপয়েন্ট এর কাছে অবস্থিত কুদরত উল্লাহ মসজিদ এ জুমআর আলোচনা হয়েছে এ ব্যাপারে। আলহামদুলিল্লাহ।

২) সিলেটের শিবগঞ্জস্থ নিউক্লিয়াস কোচিং সেন্টারে ভাইয়েরা ক্যাম্পেইন করেছেন কয়েকদিন আগে। চমৎকার একটা ক্যাম্পেইন ছিলো, কিশোরদের কাছ থেকে যথেষ্ট আশানুরূপ সাড়াও পেয়েছেন Lost Modesty Supporting Team from Sylhet এর ভাইয়েরা।

রাজশাহী

অত্যন্ত গোছালো কাজ হচ্ছে রাজশাহীতে আলহামদুলিল্লাহ। TazkiyahLife এর সার্বিক তত্ত্বাবধানে রাজশাহী কলেজে ভলান্টিয়ার ভাই এবং বোনেরা একের পর এক সেমিনার করে চলছেন। ২৪ টি ডিপার্টমেন্টে ২৪ টি সেমিনার হবে ইনশা আল্লাহ্‌। ভাই এবং বোনদের জন্য আলাদা আলাদা সেমিনার করা হচ্ছে। পাশাপাশি রাজশাহীর আশেপাশের জেলাগুলোতে ক্যাম্পেইনিং করার প্রস্তুতি চলছে । রমাদানের এই বরকতময় মাসে আল্লাহ্‌ (সুবঃ) ভাই-বোনদের কাজগুলোকে কবুল করে নিক। অঝোর বৃষ্টির মতো তাঁর ক্ষমা, রহমত, বরকত ও শান্তি নাযিল করুক।

মতিঝিল

আলহামদুলিল্লাহ, সফল Lost Modesty Supporting Team Notre Dame College এর ভাইদের প্রথম সেমিনারগুলো। ইউথ অ্যাডমিশন কোচিং সেন্টারের ক্যাম্পাসে করা হয় ৩টি সেমিনার। পাশাপাশি ছাত্রদের মাঝে লিফলেটও বিতরণ করা হয়। সার্বিক পৃষ্টপোষকতায় সাথে ছিল United Muslim Ummah- Youth Forum

রাজশাহী

আলহামদুলিল্লাহ! শিক্ষানগরী রাজশাহীতে এন্টিপর্ন ক্যাম্পেইন! রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, রুয়েট, মেডিক্যেল কলেজের ভাইদের পাশাপাশি অন্যান্য কলেজের ভাইরা একসঙ্গে দুর্দান্ত কাজ করে চলেছেন। মাশা আল্লাহ্‌! আল্লাহ্‌ ভাইদের কবুল করুক। 

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়

নীল অন্ধকারকে রুখে দিতে নতুন ধাঁচে Lost Modesty Team Support DU। আলহামদুলিল্লাহ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের জহুরুল হক হলে পোস্টারিং সম্পন্ন। আমাদের স্বপ্ন বর্তমান প্রজন্মকে সুস্থ রাখার পাশাপাশি ভবিষ্যৎ প্রজন্ম যেন অন্ধকার জগতে মিশে না যায় তার জন্য সতর্ক হওয়া। একটা ভাইও যদি এই ঘাতক থেকে নিজেকে বাঁচাতে পারে তাতেই স্বার্থকতা। পোস্টার থাকবে আপনার আশেপাশেই, একটু সময় নিয়ে পড়বেন, নিজে সচেতন হবেন, বাকীদেরও সচেতন করবেন সেই প্রত্যাশা। কিছু ভাইয়ের টাকা, কিছু ভাইয়ের সময়,পরিশ্রম সবকিছুই সার্থকতার স্বাদ পাবে যদি একজন ভাইও বাঁচতে পারি। আপনিও শুরু করতে পারেন আপনার জায়গা থেকে।

মৌলভীবাজার

এবার মাসজিদের মিম্বর থেকে অশ্লীলতা (পর্নোগ্রাফি) বিরোধী আওয়াজ। গত ২৬ এপ্রিল ২০১৯ শুক্রবার মৌলভীবাজার রোডস্থ, নাহার পেট্রোল পাম্প সংলগ্ন বাইতুস সালাম জামে মাসজিদে ‘পর্নোগ্রাফি, অশ্লীল নাটক, সিনেমা যুব সমাজ ধ্বংসের মূল উপাদান ও তার প্রতিকার ‘ শীর্ষক খুৎবা (বয়ান) প্রদান করা হয়। মাসজিদের ইমাম ও খতিব হাফেজ মুফতি আব্দুল্লাহ মারুফ অত্যন্ত সাহসী ভূমিকায় অশ্লীলতা বিরোধী চমৎকার বয়ান পেশ করেন। নামাজ শেষে মুসল্লিদের মাঝে সচেতনতামূলক লিফলেট বিলি করা হয়।

শ্রীমঙ্গল

আলহামদুলিল্লাহ ! গত ২১ এপ্রিল শ্রীমঙ্গল শহরব্যাপী ৩৫ জন তরুণ ও যুবকদের মাঝে পর্ণোগ্রাফি ও অশ্লীলতার ভয়াবহতা সম্পর্কে সচেতনতা মূলক ক্যাম্পেইন অনুষ্ঠিত হয়।

চাঁদপুর

যখন ক্লাস 10 এ (পর্নোগ্রাফি ও হস্তমৈথুন) এর ক্ষতিকর দিক নিয়ে আলোচনা শেষ করলাম, একটা ছেলে হতাশা মিশ্রিত দীর্ঘশ্বাস ছেড়ে বলল,”যদি ক্ষতিগুলো আগে জানতাম !!” ভাই ক্ষমা করে দিস। সত্যি বলতে তোদের কাছে আরো অনেক আগে যাওয়ার দরকার ছিল।কিন্তু কেনো যেন লাজ লজ্জার ভয়ে যাওয়া হল না। ইনশাল্লাহ এখন থেকে সত্য বলতে আর পিছপা হব না।

শেরপুর

প্রোগ্রাম হয়েছে একটি মাসজিদে। মাসজিদের ইমাম সাহেবও উপস্থিত ছিলেন। উনাকে আমাদের পক্ষ থেকে এক কপি বই হাদিয়া দেওয়া হয়েছে। ইসলাম এবং বিজ্ঞানের আলোকে পর্নোগ্রাফি এবং হস্তমৈথুনের ক্ষতিকর দিকগুলো নিয়ে তিনি চমৎকার কিছু আলোচনা করেছেন। আল্লাহ উনার ইলম ও আমলে বারাকাহ দান করুন।

বাগেরহাট

শুরুর কথা। আলোর মশাল নিয়ে মাঠে নেমে পড়েন বাগেরহাটের এক ভাই। তখনও আমাদের অফিশিয়াল লিফলেট বানানো হয়নি, হাজারো সীমাবদ্ধতা। উনি শেষমেষ নিজেই লিফলেটের ডিজাইন করে নিজের টাকায় ফটোকপি করে এলাকার তরুণ যুবকদের মধ্যে বিতরণ করা শুরু করলেন।  অমুক প্রাণী বিলুপ্ত হয়ে যাচ্ছে, তমুক পাখি বিপন্ন হয়ে গিয়েছে এইসব ব্যাপারে ফেসবুক, পত্র পত্রিকায় অনেক লিখালিখি করা হয়, সভা সেমিনারে বক্তারা হল কাঁপিয়ে বক্তৃতা দেন। কিন্তু বাগেরহাটের নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এই ভাইয়ের মতো মৌলিক মানুষগুলো যে বিলুপ্ত হয়ে যাচ্ছে সে ব্যাপারে কেউ কিছু বলেনা। কারো কোনো মাথাব্যথা নেই। এই মানুষগুলোকে আমরা যদি প্রাপ্য সম্মান দিতে পারতাম তাহলে বোধহয় পৃথিবীটা এতো ‘পঁচা’ হতোনা। ভালো থাকবেন ভাই। আল্লাহ আপনাকে কবুল করে নিক।

সিলেট

আলহামদুলিল্লাহ, “লস্ট মডেস্টি সাপোর্টিং টিম – সিলেট” এর প্রথম ক্যাম্পেইন সফলতার সাথে সম্পন্ন হয়েছে সিলেটের শিবগঞ্জস্থ “জালালাবাদ আইডিয়াল স্কুল” এ। প্রতিকূল আবহাওয়া সত্ত্বে স্কুল কর্তৃপক্ষ ও কিশোরদের থেকে ব্যাপক আশাব্যঞ্জক সাড়া পাওয়াতে আমরা এক অর্থে আশ্চর্য ই হয়েছি।

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়

বীর চট্টলা জেগে উঠেছে , রুখবেই এবার পর্নোগ্রাফিকে। ইনশাআল্লাহ্‌!

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়

“আমরা campaign against pornography তে এক সপ্তাহে ১৩ টি ক্লাসে পৌঁছাতে পেরেছি। পৌঁছে দিতে সক্ষম হয়েছি প্রায় ১৬-১৭ শত লিফলেট। ভাল লাগার বিষয় হচ্ছে ইতোমধ্যে এটার প্রয়োজনীয়তা অনুভব করে মৌলভীবাজার শ্রীমঙ্গল, গোপালগঞ্জ, বরিশাল, বিআইইউ, কেইউ, ডিসি, নেশনাল সহ আরো অনেক ভাইয়েরা শুরু করার জন্য পদক্ষেপ নিচ্ছেন।”

কোম্পানীগঞ্জ

শুরু হলো নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে পর্নোগ্রাফির বিরুদ্ধে ক্যাম্পেইন।

চাঁদপুর

চমক দেখিয়েই চলছেন চাঁদপুরের ভাইয়েরা। ১০ হাজার লিফলেট ছাপিয়েছেন। টিশার্ট বানিয়েছেন। ডাক দিলেই ছুটে যাচ্ছেন চাঁদপুরের আনাচে কানাচে। শত প্রতিকূলতার মুখেও কাজ করে যাচ্ছেন। 

জুরাইন

ঢাকা, জুরাইন। সবুজ ভাই ও তার টিম ঘটনা ঘটিয়ে ফেলেছেন ! ঘটনা একটা নয় , দুইটা। একটা বড়, একটা ছোট। বড় ঘটনা হল বাসার ছাদে এলাকার ভাইবেরাদরদের দাওয়াত করে ট্রিট দিয়েছেন! ছোট ঘটনা হল ট্রিট দেবার পাশাপাশি ভাই বেরাদরদের মধ্যে লিফলেট বিতরণ করেছেন আর পর্নোগ্রাফির ক্ষতিকর দিক নিয়ে অসম্ভব গোছানো আলোচনা করেছেন।

পতেঙ্গা

ছুটে চলছে আলোর কাফেলা। দেশের এক প্রান্ত থেকে অন্য প্রান্তে। আলোর মশাল হাতে এ কাফেলায় শরীক হওয়া আপনার নৈতিক দায়িত্ব।

ময়মনসিংহ

“ক্যাম্পাসের ভেতরে দুটো জায়গায় সবচে’ বেশি আড্ডা জমে। ক্যান্টিন আর অডিটোরিয়ামের সামনে। ছেলে-ছেলে, ছেলে-মেয়ে, মেয়ে-মেয়ে শ্রেণিবিন্যাসে রাজনৈতিক, ধর্মীয়, খোশগল্প সব ক্যাটাগরির আড্ডাই চলে। বলছিলাম শহরের ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আনন্দ মোহন কলেজের কথা। আমাদের আজকের ‘ময়দান’ সেখানেই ছিলো। প্রায় ১০০ জন ছাত্র-ছাত্রীকে লিফলেট দেওয়া হয়েছে। মেয়েদের উপস্থিতি বেশি হওয়ায় ছবি না তোলাটাই উত্তম মনে করেছি। অধিকাংশের প্রতিক্রিয়া পজিটিভ ছিলো। আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তা’আলা আমাদের সবাইকে পবিত্র জীবন যাপনের তাওফীক দিন। সবশেষে একটা সুখবর না জানালেই নয়। আনন্দ মোহনে পরিপূর্ণভাবে ক্যাম্পেইন করার অনুমতি মিলেছে।”

চট্টগ্রাম

পথ ,প্রান্তর স্কুল কলেজ ভার্সিটির সীমানা পেরিয়ে এন্টিপর্ন ক্যাম্পেইন পৌঁছে গিয়েছে সেই জায়গায় যেখান থেকেই বরং শুরু হবার কথা ছিল। তারপরেও আলহামদুলিল্লাহ। দেরি হলেও মসজিদের মিম্বার থেকে মুক্ত বাতাসের খোঁজে বেরিয়ে পড়ার আহবান আসা শুরু হয়েছে। লস্ট মডেস্টি সাপোর্টিং টিম – চট্টগ্রাম এর ভাইদের উদ্যোগে চট্টগ্রাম শহরের সিএনবি কলোনী জামে মসজিদে কয়েকদিন আগে অনুষ্ঠিত হয়ে গেল এন্টিপর্ন ক্যাম্পেইন। অনেক আংকেল, মুরুব্বীরা উপস্থিত ছিলেন। আশাকরি সমাজের অভিভাবকরা তরুণদের সমস্যা বুঝতে সক্ষম হবেন ইনশা আল্লাহ্‌। ভাই আমার, আপনি কবে করছেন আপনার মসজিদে?

শ্রীমঙ্গল

শ্রীমঙ্গলের আলিয়া মাদ্রাসায় এন্টিপর্ন ক্যাম্পেইন করেছেন মৌলভিবাজারের ভাইয়েরা। ১৪ বছরের বেশি ছাত্রদের মধ্যে লিফলেট বিতরণ করেছেন। ক্যাম্পেইনের অনুমতি থেকে শুরু করে লিফলেট বানানো, ব্যানার বানানো সবকিছুতেই ভাইদের অত্যন্ত খাটতে হয়েছে। আল্লাহ্‌ (সুবঃ) এই ভাইদের কবুল করে নিক।

ফেনী

“আমাদের মূল ক্যাম্পেইন ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে যাচ্ছিলো। কিন্তু আল্লাহ’র ফায়সালা ছিলো ভিন্ন। আমরা প্রথমেই বাঁধাপ্রাপ্ত হয়েছি। ফেনী জেলা কিছু স্কুল থেকে অনুমতি পেলাম না। আশা করি খুব তাড়াতাড়ি অনুমতি পাবো ইনশাআল্লাহ। আল্লাহ সহজ করে দিন। সবকিছুর পরও একটা ‘ছোট্ট’ অর্জন আমাদের হয়েছে। লিফলেট ও কিছু ‘মুক্ত বাতাসের খোঁজে’ বই সাথে নিয়ে কিছু ভাই-বেরাদারকে নিয়ে ছোটখাটো একটা প্রোগ্রাম করে ফেলেছেন আমাদের টিম মেম্বাররা। আলহামদুলিল্লাহ।”

চাঁদপুর

এই নাম না জানা ভাইদের হাতে জন্ম নেওয়া স্ফুলিঙ্গ একদিন দাবানল হয়ে মিটিয়ে দেবে নীল রঙের অন্ধকার… প্রতিকূলতার পাহাড় ভেঙ্গে আসক্ত-আচ্ছন্নরা একদিন ফিরে আসবে আলোর মশাল হাতে এ ঘুণে ধরা শহরে, ৬৮ হাজার গ্রামে, মায়ের কোলে। ফিরে আসবে জীবনে। ইনশা আল্লাহ! 

সিলেট

সিলেটের বোনেরা তাদের WSF গ্রুপের গেট-টুগেদার গুলোতে পর্নোগ্রাফির ভয়াবহতা নিয়ে আলোচনা করছেন, লিফলেট বিতরণ করছেন। আলহামদুলিল্লাহ!

দৌলতপুর

” দৌলতপুর,খুলনায় শুরু হলো পর্নোগ্রাফির বিরুদ্ধে ক্যাম্পেইন। অনেক ভাইয়ের সহযোগীতায় এই কাজ হয়েছে। আর বইগুলা ফ্রি দেওয়া হয়েছে আলহামদুলিল্লাহ্‌। “

নবীনগর

যারা একা আছেন, কাজ করতে চান কিন্তু লজিস্টিক সাপোর্ট পাচ্ছেন না, আপনারা হতাশ হয়ে বসে থাকবেন না। একটু মাথা খাটান, চোখ-কান খোলা রাখুন। সাইবার ক্যাফে, গান-মুভি লোড দেয়ার দোকান এসব জায়গা থেকে খুব সস্তায় পর্ন/ আইটেম সং, সিনেমা বেচা-কেনা হয়। আপনি এই সোর্স গুলাতে যান, প্রভাইডার ভাইদের দাওয়াত দিন, উনাদের বোঝান কেন আজ মানুষ এত হিংস্র হয়ে পড়েছে? কেন আজ ছোট ছোট বাচ্চাদের সুযোগ পেলেই ধর্ষণ করা হচ্ছে, মেরে ফেলা হচ্ছে, ছুড়ে ফেলা হচ্ছে, ডুবিয়ে মারা হচ্ছে। এই বিকৃত মানসিকতা কিভাবে জন্ম নিলো? কিভাবে অশ্লীল সিনেমা, আইটেম সং, পর্ন ব্রেইন ওয়াশ করছে আমাদের যুবসমাজকে।

দূর সমুদ্রে

সমুদ্র থেকে লিখছি। আমরা জাহাজিরা দীর্ঘদিন ঘর থেকে দূরে থাকি। তাই প্রচুর অবসর পাওয়া যায়। আর অবসরে ল্যাপটপ আর স্মার্টফোনই প্রধান ভরসা। তারমধ্যে প্রত্যেকেরই সিংগেল কেবিন, একদম নির্জন। কিছু সংখ্যক জাহাজিরা হস্তমৈথুনের কথা প্রকাশ্যেই বলে বেড়ায়। আর কিছু সমাজসেবক পোর্টে নামলে ফরেন পতিতালয়ে গমন করে নিজের কষ্টার্জিত ডলার দান করে সমাজসেবা করে আসেন। সমুদ্রের এইরকম অপরূপ পবিত্র পরিবেশে প্রকৃত মুক্ত বাতাসের খুবই প্রয়োজন । তাই এই একটা বই নিয়েই এর প্রচার শুরু করলাম। আলহামদুলিল্লাহ অনেক সাড়া পেয়েছি। 

হলিউডের মুভির মতোই আমরা এক সুপারহিরোর জন্য অপেক্ষা করি। ভাবি কোনো একদিন আমরা আয়রনম্যান, সুপারম্যানের মতো হিরো পাবো আর তারপর সব চেইঞ্জ হয়ে যাবে। বদলে যাবে। ভালোবাসা আবার ফিরে আসবে মানুষের হৃদয়ে হৃদয়ে। এখন যেভাবে চলছে চলুক, অবেলায় নিভে যাক অযুত কোটি তরুন-তরুনী, আত্মহত্যা করুক বেকার বোকা যুবকের দল, পরিযায়ী পাখি আর প্রজাপতিরা ছিন্নবিচ্ছিন্ন হয়ে যাক তাতে আমার কী? আমি তো কিছুই পরিবর্তন করতে পারব না! এগুলোর জন্য আল্লাহ্‌ তো আমাকে পাকড়াও করবেননা ! দায়িত্ব এড়ানোর কি চমৎকার শিশুসুলভ অযুহাত! আসলেই কী তাই? নাকি স্রোতের বিপরীতে দাঁড়ালে আমার শান্ত নির্ঝঞ্ঝাট জীবনটা হয়তো একটু ঝঞ্ঝা বিক্ষুব্ধ হবে, ক্যারিয়ারটা হয়তো একটু ওলট পালট হবে, ভালোমানুষ, ভালোছেলের তকমাতে কিছুটা কালি পড়বে, মাসে একবার ট্যুর দেওয়ার জীবনটা, সেলফিবাজি, রেস্টুরেন্ট, সিনেপ্লেক্সের জীবনটা, বাইক, মুভি, সিরিয়ালের জীবনটা, প্রেমিকার চোখে চোখ রেখে ঘন্টার পর ঘন্টা তাকিয়ে থাকা জীবনটা আর আগেরমতো থাকবেনা, দায়িত্ব নিতে হবে, কাজ করতে হবে এই ভেবে আমরা এই মিথ্যে কথাগুলো বলি নিজের সাথে? দূর থেকে মনে হয় স্রোতের বিপরীতে দাঁড়ানো অসম্ভব। যে একবার দাঁড়ায় কেবল সেই বুঝতে পারে স্ত্রোতের বিপরীতে দাঁড়ানো কঠিন হতে পারে তবে অসম্ভব কিছুইনা, একবার আল্লাহ্‌র ওপর ভরসা করে দাঁড়াতে পারলে আর কোনো চিন্তা থাকেনা, এই পথের পরতে পরতে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকে আল্লাহ্‌র রহমত, সাহায্য, ভালোবাসা। আর অবশ্যই চিরসুখের এক জান্নাতের প্রতিশ্রুতি। আলহামদুলিল্লাহ! হতাশা আর অন্ধকারের এই বদ্বীপে আলোর মশাল হাতে ছুটে চলছেন কিছু সিংহহৃদয় ভাইয়েরা। পর্নোগ্রাফির বিরুদ্ধে সেমিনার করে যাচ্ছেন একের পর এক। তাদের এই কাফেলায় যোগ দেওয়ার সাদর আমন্ত্রণ রইলো…

চিরকুটনামা

লিফলেট বিতরণ করার কথা মাথাতে আসলে প্রথমেই যে ছবিটা চোখের সামনে ভেসে ওঠে সেটা হচ্ছে, একজন, মানুষের ভীড়ে জোর করে হাতে হাতে লিফলেট গুঁজে দিচ্ছে, আর আম জনতা একবার চোখ বুলিয়ে মাটিতে ফেলে দিচ্ছে। অনেক সময় চোখ বুলানোও হয়ে ওঠেনা । লিফলেট হাতে পাবার পর সরাসরি মাটিতে স্থান পায়।...

read more

এলাকাভিত্তিক ভলান্টিয়ার লিস্ট

Disclaimer: ১. লস্টমডেস্টি সম্পূর্ণ অরাজনৈতিক এবং অলাভজনক একটি গ্রুপ। কোন নির্দিষ্ট দল, গোষ্ঠী, সংগঠনকে না, বরং আল্লাহ্‌কে সন্তুষ্ট করার উদ্দেশ্যে সকল প্রকার অশ্লীলতার বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ানোর জন্য আমরা কাজ করি। ২. আমরা কোন ধরনের অশ্লীলতা, ফ্রি-মিক্সিং, মানসিক/শারীরিক...

read more

আলোর মিছিল

(যেসব ভাইয়েরা পর্নোগ্রাফি-মাস্টারবেশন এর কুফল নিয়ে মাঠ পর্যায়ে কাজ করতে চান, কিন্তু বুঝতে পারছেন না কিভাবে শুরু করবেন, কি নিয়ে কথা বলবেন, কোথায় যাবেন - এই নোট, আলোর মিছিলে নাম লিখাতে চাওয়া সেই ভাইদের জন্য। এই আলোয় কেটে যাক গুমোট অন্ধকার আর হতাশা, পুড়ে ছাই হয়ে যাক...

read more