বিসমিল্লাহির রহমানীর রহীম

বর্তমানে মিডিয়ায় মার্কেটিং এ মেয়েদের যেভাবে ব্যবহার করা হয় ।

বর্তমানে মিডিয়ায় মার্কেটিং এ মেয়েদের যেভাবে ব্যবহার করা হয় তা সত্যি লজ্জাজনক এবং মেয়েদের জন্য অপমানজনকও বটে । অনেকে হয়ত বলবেন এটা তো একটা শিল্প  । যারা এর বিরোধিতা করে তারা সাম্প্রদায়িক এবং তারা মেয়েদের অধিকার এর বিরুদ্ধে । কিন্তু তবুও আমার মনে কিছু প্রশ্ন জাগে যার উত্তর পায় না । প্রশ্ন গুলা হল –

১. কেবলমাত্র মেয়েদেরকে ছোট ড্রেস পরানো হয় কেন ? উদাহরনত বেশিরভাগ মুভিতে দেখা যায় নায়িকা বিকিনি পরিহিত অবস্থায় যৌন উদ্দীপক গানে নাচছে যাকে বলা হয়  item song । কিন্তু কখনো কোন পুরুষ কে দেখি না আন্ডারওয়্যার পরা অবস্থায় কোন মুভিতে । কেন ?

২. মেয়েদের অনেক সৌন্দর্য প্রতিযোগিতা হয় । সেখানে তথাকথিত আধুনিক মেয়েরা বুক উচু করে বিশেষ ভঙ্গিতে হাটা হাটি করে (ক্যাটওয়াক) । আর কিছু পুরুষ বিচারক

(১ জন নারীও থাকতে পারে) তার দেহের প্রশংসা করে, কোন ক্ষেত্রে আবেদন কম হয়েছে কোথায় তার মুভ ভালো হয়েছে ইত্যাদি বিশ্লেষন করে । এসব ক্ষেত্রে তারা hot, sexy ইত্যাদি complement দেয় । আর মেয়েগুলো তাতে খুশিতে আটখানা হয়ে sir sir বলে লুটিয়ে পড়ে ।

কিন্তু আশ্চর্যের ব্যাপার হল ছেলেদের এমন কোন প্রতিযোগিতা হয় না । কারন কি ? পুরুষরা কি তাহলে শিল্পের বাইরে  !

৩. অধিকাংশ মুভি হয় (৯৯%) পুরুষকেন্দ্রিক । সেখানে মেয়েদের অভিনয়ের চাইতে শরীর দেখানোয় প্রধান কাজ । কেন ?

৪. ক্রিকেট খেলায় বর্তমানে চিয়ারগার্লস ব্যবহার করা হয়।তারা অত্যন্ত ছোট পোশাক পরিহিত অবস্থায় দর্শকদের মনরঞ্জন করে । কিন্তু এসব ক্ষেত্রে ছেলেদের ব্যবহার করা হয় না কেন ? দুই একজন থাকলেও তারা ছোট ড্রেশ পরে না কেন ?

৫. যেসব মেয়ে কালো এবং অসুন্দর তারা কেন মিডিয়ায় চান্স পায় না ? উদাহরনত আমি কোন কাল মেয়েকে (দুই একজন ব্যাতিক্রম থাকতে পারে) নায়িকা বা মডেল হতে দেখি না । ৯-১০ বছর আগে আগবানি দারেগা নামের এক কালো মেয়েকে বিশ্বসুন্দরী করা হয়েছিল । সে তো খুশিতে আটখানা।কিন্তু সাধারন মানুষ বুঝছে তার সাথে কি নিষ্ঠুর তামাশা করা হয়েছিল ? তাহলে কি মডেলিং বর্নবাদী নয় ? সুন্দরী প্রতিযোগিতা কি অসুন্দর মেয়েদের প্রতি অপমানজনক নয় ?

৬. শেভিং ক্রিম,ব্লেড, গাড়ি, মটরসাইকেল এমনকি ইশপগুলের ভূশির বিজ্ঞাপনে মেয়েদের নগ্ন ব্যবহার কি মেয়েদের মর্যাদা ক্ষুন্ন করে নাহ ?

৭. আবার যখন দেখি একটি বিশেষ পারফিউম ব্যবহার করার কারনে এক ছেলের পিছনে হাজার খানেক বিকিনি পরা মেয়ে ছুটাছুটি করে তখন আমার প্রশ্ন জাগে মেয়েরা কি এতই সস্তা ? তারা কি নিজেদের মর্জাদাও বোঝে নাহ ? ৫০০ টাকার পারফিউম একবার ব্যবহার করার কারনে ১০০০ বিকিনি পরা মেয়ে ??

৮. আবার অধিকাংশ মুভিতে দেখানো হয় নায়ক নায়িকাকে ইভ টিজিং করছে । পরবর্তিতে তাদের মাঝে প্রেম হয় । এভাবে কি তারা ইভ টিজিং কে উৎসাহিত করচে নাহ ? আবার তারাই হালকা সামাজিকতার লোভে ইভ টিজিং বিরোধি কনসার্ট করে , মানব বন্ধন করে ।

৯. মেয়েদের complement দেওয়া হয় hot , sexy আর ছেলেদের ক্ষেত্রে handsome, smart।এইরকম কেন ?

Know Your Enemy

*** এসব প্রশ্নের উত্তর আমার মতে যা তা এখন ব্যাখ্যা করতে চায়।হয়তোবা অনেকে একমত হবেন না কিন্তু সেক্ষেত্রে আপনার মতামত দিয়ে আমাকে বুঝতে সাহায্য করুন ।

টার্গেট ক্রেতা যখন ছেলেঃ

পন্যঃ  সাধারন পন্য এবং কোন ক্ষেত্রে মেয়েরাই প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষ ভাবে পন্য ।

পন্য ক্রয়ে উত্তেজক নীতিঃ

প্রথমতঃ ছেলেরা সুন্দরী এবং স্বল্পবসনা মেয়ে পছন্দ করবে (যখন মেয়েরা নিজেরায় পন্য) ।

দ্বিতিয়তঃ পন্যটি ব্যবহার করলে আপনার দিকে মেয়েরা আকৃষ্ট হবে ।

তৃতীয়তঃ বিজ্ঞাপনে স্বল্পবসনা সুন্দরী মেয়ের ব্যবহার পন্যটির দিকে ছেলেদের আকৃষ্ট করবে ।

টার্গেট ক্রেতা যখন মেয়েঃ

পন্যঃ  অধিকাংশ সাধারন এবং সাজসজ্জার পন্য

পন্য ক্রয়ে উত্তেজক নীতিঃ

প্রথমতঃ এই পন্যের ব্যবহার আপনার দিকে ছেলেদের আকৃষ্ট করবে ।

দ্বিতিয়তঃ আপনি বিখ্যাত এবং তারকা হতে পারবেন।আপনার পায়ের নিচে থাকবে পৃথিবী এবং পিছনে থাকবে ছেলেদের লাইন ।

*** এবার আসুন এই নীতির আলোকে উপরের প্রশ্নগুলার উত্তর দেওযার চেষ্টা করি-

১.উত্তরঃ এক্ষেত্রে মেয়েরা পরোক্ষ পন্য।বিকিনি পরা মেয়ে নাচলে মুভির কাটতি বাড়বে।পক্ষান্তরে আন্ডারওয়ার পরা ছেলে নাচলে মুভির কাটতি বাড়বে না বরং কমে যেতে পারে ।

২.উত্তরঃ  এক্ষেত্রেও মেয়েরা পন্য।উদাহরনতঃ আমরা lux channel I superstar এর কথা আলোচনা করতে পারিঃ

–এই অনুষ্ঠানে সারাবছর লাক্স তার বিজ্ঞাপনি প্রচারনা চালায়।কারন সব ছেলেরা সেক্সি মেয়ে দেখার জন্য এই অনুষ্ঠান দেখে।আর মেয়েরা দেখে কিভাবে সুন্দরি সেক্সি হওয়া যায় তা শেখার জন্য।

–এটাকে কেন্দ্র করে মোবাইল কোম্পানি গুলা তাদের এসএমএস ব্যাবসা করে।আপনি খরচ করেন ২ টাকা।কিন্তু তারা আয় করে ৫০ লক্ষ*২ = ১ কোটি টাকা , প্রতি পর্বে।

–চ্যানেল আই তার কাটতি বাড়ায় এবং স্পন্সরসিপ বাবদ মোটা টাকা ইনকাম করে।

**ছেলেদের লাভঃ তারা কিছু নতুন সুন্দরী মেয়ে এবং তাদের আবেদন্ময় চালচলন দেখে মজা পায়।

**মেয়েদের লাভঃ তিন চার জন হয় তারকা (!!) আর বাকিরা হয় ঈর্ষান্বিত আর মনে মনে চিন্তা করে আমরাও যদি হতে পারতাম।এই চিন্তা তাদের আরও খোলামেলা করে ভবিষ্যতে চান্স পাবার জন্য।আর সেক্সি হবার কিছু কৌশল শেখা হয়।

৩.উত্তরঃ ছেলেদের উত্তেজক নীতি ১- ছেলেরা সুন্দরী এবং স্বল্পবসনা মেয়ে পছন্দ করবে(যখন মেয়েরা নিজেরায় পরোক্ষ পন্য)

৪. কারন ক্রিকেট খেলায় মাঠের দর্শক ৯৯% ছেলে।বিকিনি পরা মেয়েই তো নাচাতে হবে তাহলে টিকিটের দামও বাড়ানো যাবে।আর ছেলে নাচালে তো মাঠ থেকে দর্শক পালিয়ে যাবে।

৫.উত্তরঃ কালো , অসুন্দর মেয়ে ছি…… ।এখানেও মেয়েরা পন্য।ছেলেরা ক্রেতা।বিক্রেতা চায় ক্রেতাকে সন্তুষ্ট করতে।ভালো পন্য দিতে।

৬.উত্তরঃ ছেলেদের উত্তেজক নীতি ৩- বিজ্ঞাপনে স্বল্পবসনা সুন্দরী মেয়ের ব্যবহার পন্যটির দিকে ছেলেদের আকৃষ্ট করবে।

৭.উত্তরঃ ছেলেদের উত্তেজক নীতি ২- পন্যটি ব্যবহার করলে আপনার দিকে মেয়েরা আকৃষ্ট হবে।

৮.উত্তরঃ কারন সামাজিকতা।লোকজনের কোম্পানির প্রতি দুর্বলতা তৈরী হবে।লোকে মনে করবে আহারে মেয়েদের জন্য তারা কত কি করছে।

৯.উত্তরঃ এখানে মেয়েদের উত্তেজনা দেওয়া হয় যে হট আর সেক্সি হওয়ায় তোমার আসল সাফল্য।কারন এতে তাদের hot এবং sexy করার জন্য বিভিন্ন পন্য বিক্রিতে সুবিধা হবে।সোজা কথায় তাদের গাধা বানানো আরকি।

আর যেসব ছেলে যত বেশি উল্লেখিত গাধার নাকে দড়ি দিয়ে ঘুরাতে পারবে তাদের অযথা প্রশংশা করে তাদের ব্যবহার করতে পারবে তারা তত smart and handsome ।

পরিশেষে বলি কিছুদিন আগে এক বন্ধুর মোবাইলে একটি ভিডিও দেখলাম।সেখানে প্রযোযক একটি মেয়ের নগ্ন দেহ উপোভোগের ভিডিও করে এবং তার সম্মতিতে।মেয়েটা প্রথমে রাজি না থাকলেও পরে রাজি হয় মডেল হবার স্বার্থে।মেয়েটা কান্নাজড়িত কন্ঠে বলল স্যার আপনি কিন্তু আমার ক্যারিয়ার টা দেখবেন।স্যার উত্তর দিল আরে বোকা তুমি এটা নিয়ে চিন্তা কর নাহ।

এই ভিডিও দেখে আমি দুই রাত ঘুমাইতে পারি নি।আমাদের মা বোনেরা কি এতই বোকা ?এতই হালকা ? এতই স্বস্তা?

তারা কি বোঝে না পুজিবাদীরা তাদের কেবল পন্য বা পন্যের উত্তেজক হিসাবে ব্যবহার করে শিল্পের নামে, অনেক ভালো ভালো কথা শুনিয়ে?তার কি বোঝে না কোথায় তাদের সম্মান? কোথায় তাদের অধিকার?কোথায় তাদের স্বাধীনতা?

দ্রষ্টব্যঃ আমি এখানে কোন মেয়ের বিরূদ্ধে কথা বলি নি।আমি এজন্য মেয়েদের দোষি করি নি। তারা তো কেবল মাত্র পুজিবাদীদের শিকার।পুজিবাদিরা  ছেলেদের ভোগে উৎসাহিত করার জন্য নগ্ন ভাবে মেয়েদের ব্যবহার করে। যারা ব্যাবহার করে তারা অধিকাংশই ছেলে।দোষি তো আমাদের পুজিবাদী ব্যাবস্থা – যেখানে নৈতিকতার ন্যূনতম মুল্য নাই, যেখানে মুনাফা অর্জন করায় প্রধান,যেখানে পুজি জমা করায় প্রধান উদ্দেশ্য- তা আমাদের মা বোনের ইজ্জতের বিনিময়েও হোক না কেন?আর আমরা স্বস্তা খ্যাতি আর টাকার লোভে আমাদের মা,বোন,বউ দের তাদের হাতে তুলে দিই।আবার কখনো নিজেরা অন্যের মা, বোন,বউ কে বুবহার করি।এই লজ্জা তো আগে আমাদের তারপর মেয়েদের!!

Collected From

Brother Maruf Anwar

[কৃতজ্ঞতাঃ মিডিয়ায় নারী যখন পণ্যঃ উপেক্ষিত হিজাব ]

#নারী_স্বাধীনতা

#একেই_বলে_সভ্যতা

শেয়ার করুনঃ